window.dataLayer = window.dataLayer || []; function gtag(){dataLayer.push(arguments);} gtag('js', new Date()); gtag('config', 'UA-151379677-3');

মোবাইল দিয়ে ঘরে বসেই অনলাইনে ইনকাম করুন সহজেই

0
(0)

বর্তমান সময় হচ্ছে ইন্টারনেট এর যুগ। আর এই ইন্টারনেট থেকে আপনি যদি আয় করতে চান তাহলে অবশ্যই ভাল কিছু আয় করতে পারবেন। আমরা প্রায় সবাই মোবাইল, ট্যাব, ল্যাপটপ, কম্পিউটারে ইন্টারেনট ব্যবহার করে থাকি। কিন্তুু আমরা যদি সেগুলো ব্যবহার করার মাধ্যমে ঘরে বসে অনলাইনে ইনকাম করি তাহলে আমাদের চাকুরির পিছনে দৌড়াতে হবে না। তাই আপনি যদি একটু বুদ্ধি খাটিয়ে অনলাইনের মাধ্যমে আয় করতে পারেন। সেটি অবশ্যই আপনার জীবনকে অনেকদুর এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার সাহয্য করবে। আজ আমরা একটি সাইট এর কথা বলব। যেখান থেকে আপনি ঘরে বসেই অনায়েসে অনলাইনের মাধ্যমে আয় করতে পারবেন। চলুন দেখে নেই সেই অনলাইনের মাধ্যমে আয় করা সাইট এর সব বিস্তারিত তারআগে অনলাইনে আয় সম্পর্কিত বিস্তারিত কিছু দেখে নিন।

অনলাইন ইনকাম কি

আপনাদের হয়তো জানতে ইচ্ছে করে যে অনলাইন ইনকাম কি? আসলে অনলাইন ইনকাম হল আপনি অনলাইনে ইন্টারনেট ব্যবহার করে যে রকম আয় করবেন সেটি হল অনলাইন ইনকাম। বিশ্বে হাজার হাজার অনলাইন ইনকাম করার ওয়েবসাইট বা আ্যাপ আছে। যেগুলোর মাধ্যমে আপনি কাজ করে ইনকাম করতে পারেন। আবার হাজার হাজার ওয়েবসাইট ও আ্যাপ আছে যেগুলো একদম ভূয়া। আপনার সারাদিনের পরিশ্রম এমনকি সারা মাসের পরিশ্রম একদম ব্যর্থ হয়ে যায়। তার মানে হলো আপনার কাছ থেকে অনলাইনে ইনকাম করিয়ে নিয়ে টাকা দেয় না। এমনকি এমনও ওয়েবসাইট রয়েছে যেগুলোতে একাউন্ট খুললে আপনার ই-মেইল হ্যাক হতে পারে।

কিভাবে অনলাইনে ইনকাম করব

এই সময়ে আপনি হাজার হাজার পদ্ধতিতে অনলাইনে ইনকাম করতে পারবেন। আপনি যদি অনেক পারদর্শিতা হোন তাহলে সবচেয়ে বড় মার্কেটপ্লেস যেমনঃ ফ্রিল্যান্সার ডট কম, ফাইবার ডট কম সহ বড় বড় মার্কেটপ্লেস এ কাজ করতে পারেন। বর্তমানে সেখানে অনেক কম্পিডিশন হয়ে গিয়েছে। আপনি চাইলেই নতুন অবস্থায় ভাল কিছু করতে পারবেন না। আর যদি আপনি ভাল এক্সপার্ট হোন তাহলে অবশ্যই অনলাইনে সেখানে আপনার গীগ প্রদর্শন করে বিভিন্নরকম আয় করতে পারবেন।

বাংলাদেশি সাইট থেকে আয়

আজ আমি আপনাদের বিশ্বের সব ফ্রিল্যান্সিং সাইট থেকে আয় ইনকাম করার কোন তথ্য দিব না। আজ আপনাদের এমন একটি ওয়েবসাইট থেকে আয় করার পরামর্শ দিব যে ওয়েবসাইট টি হল বাংলাদেশের। আর সব থেকে বড় কথা হল আপনি এখান থেকে বেশি এক্সপার্ট হয়ে আয় করতে হবে না। আপনি সব স্টেপ ফলো করুন এবং অনলাইন থেকে আয় করতে থাকুন।

সাইট এর নাম কি ও অফিস কোথায়

এই ওয়েবসাইট এর উদ্দেশ্য হল তরুণ উদ্দ্যোক্তাদের জন্য ঘরে বসে অনলাইনে ভাল আয় করার সুযোগ সৃষ্টি করা। ওয়েবসাইট এর নাম হল সেল্প-ইম্পেয়মেন্ট  self-employments এই ওয়েবসাইট এর অফিস হলো চট্রগামে। এটাই ওদের মেইন অফিস। এই ওয়েবসাইট কোনরকম ভায়া হিসেবে কাজ করে না। তাই আপনি নির্দিধায় একাউন্ট খুলে আয় করতে পারেন।

এই সাইট কত ধরনের অনলাইন ইনকাম দেয়

বর্তমানে এই ওয়েবসাইট টি ২ ধরনের ইনকামের পথ দিয়ে থাকে তবে এরা আরো বেশি ধরনের অনলাইনে ইনকাম করার জন্য কাজ করে যাচ্ছে। যে দুই ধরনে আপনি ইনকাম করতে পারেন সেগুলো হল :

Direct Work Income (ডাইরেক্ট ওয়ার্ক ইনকাম)।Work Referral Income(ওয়ার্ক রেফারেন্স ইনকাম)

মূলত আপাতত আপনি এই দুই রকম পদ্ধতি থেকে অনলাইনের মাধ্যমে এই ওয়েবসাইট থেকে আয় করতে পারবেন।

Direct Work Income কিভাবে কাজ করে

আপনি যদি ডাইরেক্ট ওয়ার্ক ইনকাম নিয়ে কাজ করতে চান তাহলে আপনাকে নিচের স্কিনশর্ট টি ফলো করতে হবে

আপনি স্ক্রিনশর্ট এ নিশ্চয়ই দেখতে পেয়েছেন একটি করে এ্যাড যেটি পর্যায়ক্রমে 1,2,3,4 পর্যন্ত। আবার আরও নিচে দেখুন 1,2,3,4,5,6,7,8,9..>> এরকম। তার মানে হল প্রতি পেজ এ ৪ টি করে এ্যাড রয়েছে। আর সর্বনিম্নে যথাক্রমে যে সিরিয়াল দেওয়া রয়েছে সেগুলোও হলো একেকটি করে পেজ ওখানেও ৪ টি করে এ্যাড রয়েছে। এখন Direct Work Income এর কাজ হল আপনি প্রতিটি এ্যাড এ সিরিয়াল সহকারে একবার করে ক্লিক করবেন। প্রথম পেজ এর সব এ্যাড এ ক্লিক করা হলে আপনি (Go To Next Page) বাটনে ক্লিক করে আবার নতুন পেজ এ ক্লিক করবেন।

এখানে ১০০ টি করে স্টেপ থাকবে। আপনি প্রতি স্টেপ এর জন্য পাবেন ১ টাকা করে। আর প্রতিদিন যদি আপনি ১০০ টি স্টেপে কাজ করেন তাহলে প্রতিদিন পাবেন ১০০/- টাকা করে। আর একটা কথা মাথায় রাখবেন। প্রতি ১ টা স্টেপে ১০ টি করে পেজ থাকে আপনি যখন ১০ নম্বর পেজ শেষ করবেন তখন ঠিক উপরে লেখা থাকবে View Any Add 20 Second তখন আপনাকে একটা এ্যাড প্রদর্শন করবে। আপনি সেই এ্যাড টি ৩০ সেকেন্ড পর্যন্ত দেখে ব্যাক বাটনে ক্লিক করে বেড়িয়ে যাবে। এবার আপনার এই Direct Work Income এর পালা শেষ টাকা জমা হয়ে যাবে।

তাহলে আপনি Direct Work Income এর মাধ্যমে যদি প্রতিদিন ১০০ টাকা করে অনলাইনে আয় করেন মাসে ইনকাম হবে ৩০*১০০= ৩০০০/- টাকা। আপনি Direct Work Income থেকে প্রতিমাসে ৩০০০/- টাকা ও বছরে আয় করতে পারলেন ৩৬ হাজার টাকা।

Work Referral Income কিভাবে করে

আপনি এবার ২য় ক্যাটাগরির কাজের মাধ্যমে এই ওয়েবসাইট থেকে আয় করতে পারবেন Work Referral Income এর মাধ্যমে রেফারেন্স/ রেফারেল যাই বলুন না কেন চেইন এর মাধ্যমে আপনি ভাল ইনকাম করতে পারবেন। কিছুটা এ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর মত। আপনি একটু সুন্দর করে নিম্নের স্ক্রিনশর্ট টি দেখুন

 

আপনি যদি কোন ব্যক্তিকে এই সাইটে কাজ করার জন্য নিয়ে আসেন ( রেফার করেন)। তাহলে আপনাকে একটি ভাল অর্থ প্রদান করা হবে। ধরুন আপনি একটি দোকানে একজন কাস্টমার নিয়ে আসলেন। কাস্টমার নিয়ে আসার কারনে আপনি দোকানীর কাছ থেকে একটি কমিশন পেলেন। সেইম এই সাইট এর মাধ্যমে যদি কেউ কাজ করতে আসে তাহলে আপনাকে এই ওয়েবসাইট থেকে কমিশন প্রদান করা হবে। আর কমিশন পাবেন একদম দুইভাবে এবং ১০ লেভেল পর্যন্ত।

কোন অনলাইন এক্টিভিস্ট যদি আপনার রেফারেল কোড হতে এই সাইট এ সাইন আপ করে তাহলে আপনি পাবেন ৩৫০/- টাকা একদম ফ্রি। এবং আপনি যে ব্যক্তিকে রেফার করে সাইনআপ করিয়েছেন সেই ব্যক্তির ইনকামের ২৫% পাবেন আপনার কমিশন স্বরুপ। তাহলে সেই ব্যক্তি যদি এই ওয়েবসাইট থেকে অনলাইনে প্রতিদিন ১০০ টাকা করে ইনকাম করে মাসে ৩ হাজার টাকা ইনকাম করতে পারে। আপনি ২৫% হলে ৭৫০/- টাকা তার আয়ের মাধ্যমে আপনার থাকবে । মোট রেফার করা ব্যক্তির মাধ্যমে পেলেন ৩৫০+৭৫০= ১০১০০/- টাকা একজন ব্যক্তি থেকে পেলেন।

আপনি যাদের জয়েন করিয়েছেন তারা হলো 1 Level এর লোক। আর আপনার জেয়েন করা ব্যক্তিদের মাধ্যমে যারা জয়েন করেছে তারা হয় 2 Level এর লোক। আবার তাদের মাধ্যমে যারা জয়েন করেছে তারা হবে 3 Levels এর লোক। এভাবে আপনি যত বেশি রেফালের নিতে পারবেন আপনার ইনকাম তত বেশি হবে।

পেমেন্ট সিস্টেম

আপনি এই সাইট থেকে অনলাইনে আয় কত করলেন তা আপনার ড্যাসবোর্ড থেকে জানতে পারবেন। আপনি এই টাকা যে কোন মাধ্যমে উঠাতে পারবেন যেনমঃ মাস্টারকার্ড, বিকাশ, রকেট, এম ক্যাশ এর মাধ্যমে টাকা উত্তলন করবেন।

একাউন্ট খোলার নিয়ম

আপনি যদি এই সাইট এ একাউন্ট খুলে অনলাইনে কাজ করার ইচ্ছুক হোন তাহলে আপনি Google Chrome ব্রাউজার ওপেন করে এই সাইট এ জয়েনিং দিতে হবে। এবং সাইন-আপ বাটনে ক্লিক করতে হবে । নিচে সাইন-আপ বাটনে পেজ দেওয়া হল।

 

আপনি এখানে স্টেপ বাই স্টেপ এ শূন্যস্থান ঘরগুলো পূরন করবেন। আপনি যেভাবে পূরন করবেন তা হল

• আপনার নাম ( ইংলিশ) এ দিবেন।
• আপনার ফোন নাম্বার দিবেন +88 ছাড়া।
• আপনার স্বরন থাকা পাসঃ দিবেন।
• আবার আপনার সেই পাসঃ দিবেন।
• রেফারেল আইডি দিবেন : 121487
• আপনার ভোটার আইডি নাম্বার/পাসপোর্ট / বার্থ সার্টিফিকেট নামার দিবেন।

এর পর আপনি Register এ ক্লিক করুন। ব্যাস, আপনার একাউন্ট তৈরি হয়ে গেল। আপনি মেইল এ চেক করুন। একটি মেল পাবেন। কিন্তুু তখন আপনার ক্রিয়েট করা একাউন্ট এপরোভ হবে না।

 

আপনি এখন ড্যাস বোর্ড এ গিয়ে দেখতে পাবেন (Active Now) নামের একটি বাটন। সেখানে ক্লিক করলে আপনাকে সাইট এ কাজ করার জন্য কিছু শর্ত ও নীতিমালা দেওয়া আছে। এগুলো ভালকরে পড়ুন। এবং আরও দেখতে পাবেন যে _ সেই সাইট এ কাজ করার জন্য তাদেরকে ১৫০০/- টাকা পে করতে হবে।

আপনি যদি ওয়েব সাইট এ কাজ করার জন্য আগ্রহ করে থাকেন তাহলে সেখানে দেওয়া বিকাশ নাম্বারে আপনি ১৫শ টাকা পে করবেন সেই ফর্ম অনুযায়ী। পে করার পর আপনি সেখানে আপনার যে নম্বর থেকে বিকাশ করেছেন সেই নাম্বার ও মেসেজ এন ট্রানজেকশন আইডি বসিয়ে দিয়ে ও পিনকোড দিয়ে সাবমিট করে নিন। তখন আপনার ফোনে অটোমেটিক একটি পিনকোড চলে যাবে । আপনি সেই পিনকোড টি দিবেন এবং পিনকোড টি সব সময় মনে রাখবেন। যখন আপনার টাকা তোলার দরকার হবে তখন আপনি সেই কোড দিয়ে টাকা তুলে নিবেন। নিম্নে তখন একটি ড্যাসবোর্ড দেখতে পাবেন এই রকম।

ইনভেস্ট ছাড়া ভাল কিছু আশা করবেন তা কিন্তুু অবশ্যই না। আপনি যে কোন জায়গা থেকে ইনকাম করুন না কেন আপনাকে ইনভেস্ট করতে হবে। আর আপনি এই ওয়েবসাইট থেকে কিছু টাকা ইনভেস্ট করে আপনি হাজার হাজার টাকা আয় করতে থাকুন।

লেখাটি আপনার কাছে কেমন লেগেছে, অনুগ্রহ করে সে অনুযায়ী ভোট দিন

ভোট দিতে স্টার বাটনে চাপুন

We are sorry that this post was not useful for you!

Let us improve this post!

Tell us how we can improve this post?

পোস্টটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন

Leave a Comment